Breaking News

আশরাফুলের ব্যাটিং ঝড়, দশ বলে ৫ উইকেট নিয়ে বাজিমাত করলেন আনিসুল ইমন

আজ ডিপিএলে মুখোমুখি হয়েছে ওল্ড ডিওএইচএস স্পোর্টিং ক্লাব ও শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব। আনিসুল ইসলাম ইমনের মূল কাজ ব্যাটিং। দলের ইনিংস সূচনার দায়িত্ব নিয়েই ব্যাট করতে নামেন প্রতি ম্যাচে।

তবে কাজ চালানোর মতো বোলিংটাও করেন কার্যকরিতার সঙ্গে। যার সুফল এবার পেলো ওল্ড ডিওএইচএস স্পোর্টিং ক্লাব। শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবের বিপক্ষে মাত্র দশ বলের মধ্যেই ৫ উইকেট তুলে নিয়েছেন তিনি।

সাভারের বিকেএসপির ৩ নম্বর মাঠে চলতি ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের দশম রাউন্ডের ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে শেখ জামাল ও ডিওএইচএস। বৃষ্টির কারণে নির্ধারিত সময়ের অনেক পরে খেলা শুরু হওয়ায় ম্যাচের দৈর্ঘ্য ঠিক করা হয় ইনিংসপ্রতি ১৩ ওভার করে।

যেখানে আগে ব্যাট করে নির্ধারিত ১৩ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১২০ রানের বড় সংগ্রহ দাঁড় করিয়েছে শেখ জামাল। বল হাতে মাত্র ২ ওভারে ২৩ রান খরচায় ৫ উইকেট তুলে নিয়েছেন আনিসুল ইমন। চলতি লিগে এটি তৃতীয় ৫ উইকেট নেয়ার ঘটনা।

বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচটিতে শেখ জামালকে উড়ন্ত সূচনা এনে দেন দুই ওপেনার মোহাম্মদ আশরাফুল ও সৈকত আলি। তাদের জুটিতে আসে ৬৯ রান। ইনিংসের অষ্টম ওভারে প্রথমবারের মতো আক্রমণে এসে দ্বিতীয় ও তৃতীয় বলে দুজনকেই আউট করেন ইমন।

সৈকতের ব্যাট থেকে আসে ২৩ বলে ৩৭ রানের ইনিংস, ঝড়ো শুরুর পর আশরাফুল করেন ২২ বলে ২৬ রান। এরপর জিয়াউর রহমান ১২, ইমরুল কায়েস ১১ ও নুরুল হাসান সোহান ১১ রান করে দলীয় সংগ্রহটা ১২০ রানে নিয়ে যান।

আনিসুল ইমনের পরের তিন উইকেট এসেছে তার ব্যক্তিগত দ্বিতীয় ও ইনিংসের ১২তম ওভারে। সেই ওভারের প্রথম বলে ইমরুল, তৃতীয় বলে মোহাম্মদ এনামুল ও শেষ বলে সাজঘরে ফেরেন তানভীর। ইমনের পাঁচটি উইকেটই ছিল ক্যাচ আউট।

খুব ভালো বোলিং না করলেও, নিজের ফিল্ড সেটিং মাথায় রেখে বোলিংয়ের পুরস্কারই মূলত পেয়েছেন তিনি। সবমিলিয়ে ২ ওভারে ২৩ রান খরচায় নিয়েছেন ৫ উইকেট। টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারে আগের ২০ ম্যাচের মধ্যে ৭ ম্যাচ বোলিং করে ৫ উইকেট নিয়েছিলেন তিনি। এবার এক ম্যাচেই নিলেন ৫টি।

চলতি লিগে আনিসুল ইমনের আগে ফাইফার নিয়েছেন প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাবের মোস্তাফিজুর রহমান (২২ রানে ৫ উইকেট) ও শেখ জামালের সালাউদ্দিন শাকিল (১৬ রানে ৫ উইকেট)।

Check Also

বাংলাদেশ দল যে কারণে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ফরম্যাটে সফল হয়েছে

বাংলাদেশ বিদেশের মাটিতে এ প্রথমবার তিন ফরম্যাটে সিরিজ জিতেছে। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টেস্ট, ওয়ানডে, টি-টোয়েন্টি সিরিজ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *